“রামু উৎসব ২০১৮” আগামী ১৯ জানুয়ারী

0
61

প্রেস বিজ্ঞপ্তি:
আগামী ১৯ জানুয়ারী ঢাকা মতিঝিলস্থ টিএন্ডটি স্কুল মাঠে অনুষ্ঠিত হবে রামু উৎসব ২০১৮। এতে কক্সবাজার তথা বৃহত্তর চট্টগ্রামের বিশিষ্ট ব্যক্তিত্বদের পাশাপাশি ঢাকায় অবস্থানরত রামুবাসীরা স্ববান্ধব-স্বজন সহ উপস্থিত থাকবেন।

উৎসবে রামুর কৃষ্টি-সংস্কৃতি, খাদ্য ও স্থাপত্যশিল্প নিয়ে নানা আয়োজন রাখা হবে। নগরজীবনের ব্যস্ততা ভুলে নীড়ের টানে ক্ষণিকের জন্য আনন্দ-মাত্রা সঞ্চার করবে প্রাণোচ্ছল এ আয়োজন। উৎসব প্রস্তুতি উপলক্ষে রামু সমিতির প্রতিনিধিরা নানা মুখী আয়োজন নিয়ে ব্যস্ত সময় পার করছেন।

সর্বশেষ প্রস্তুতি সমন্বয় সভা অনুষ্ঠিত হবে ১২ জানুয়ারী টিএন্ডটি স্কুল মাঠে। এতে কক্সবাজার-৩ এর সংসদ সদস্য, রামু সমিতির উপদেষ্টা পরিষদ, ট্রাস্টি বোর্ড ও কার্যকরী পরিষদের সদস্যবৃন্দ উপস্থিত থাকবেন।

উল্লেখ্য, গত মাসের প্রথম সপ্তাহে রামু সমিতির মাসিক সভায় রামু উৎসব আয়োজনের সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। সমিতির সভাপতি নুর মোহাম্মদের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক সুজন শর্মার পরিচালনায় ঐ সভায় বক্তব্য রাখেন উপদেষ্টা সদস্য পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় সচিব মাফরুহা সুলতানা, নির্বাচন কমিশন সচিব হেলালুদ্দিন আহমেদ, কক্সবাজার উন্নয়ন কতৃপক্ষ চেয়ারম্যান লেঃ কর্ণেল ফোরকান আহমদ, সাবেক সাংসদ ইঞ্জিনিয়ার সহিদুজ্জামান, সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান আবুল মনসুর, গ্রামীণ ব্যাংকের সাবেক জেনারেল ম্যানেজার জান্নাতুল কাউনাইন, ট্রাস্টি বোর্ডের চেয়ারম্যান ডাক বিভাগের সাবেক মহাপরিচালক আব্দুল মোমেন চৌধুরী, ব্যারিস্টার মিজান সাইদ, রামু সমিতির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আজিজুল ইসলাম প্রমুখ।

রামু উৎসব নিয়ে কর্ম-পরিকল্পনা ও প্রস্তাবনার খসড়া প্রতিবেদনে প্রচার,প্রকাশনা ও সাহিত্য সম্পাদক মোহিব্বুল মোক্তাদীর তানিম উৎসবের মোড়ক উন্মোচন, দিনব্যপী অনুষ্ঠানসমূহ, বাজেট, প্রকাশনা, স্পন্সর পলিসি, বিভিন্ন উপ-কমিটি গঠনের প্রস্তাবনা তুলে ধরেন। প্রায় দুহাজার উপস্থিতির এ আয়োজনে রামুর ঐতিহ্যবাহী মেজবানের পাশাপাশি, পিঠা উৎসব, শিশুদের বিনোদন ও আকর্ষণীয় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের পরিকল্পনা করা হয়েছে।

 

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here