রামুতে পন্ডিত সত্যপ্রিয় মহাথেরর পেটিকাবদ্ধ অনুষ্ঠানে আমির খসরুঃ বিএনপি সব ধর্মের মানুষের প্রতি শ্রদ্ধাশীল

0
4

সোয়েব সাঈদ, রামুঃ
বাঙ্গালী জাতীয়তাবাদ নয়,বিএনপি বাংলাদেশী জাতীয়তাবাদে বিশ্বাস করে। এবং সব ধর্মের,সব ভাষার মানুষকে নিয়ে যে রাজনীতি,সেটাই বিএনপির রাজনীতি বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আমির খসরু মাহমুদ চৌধুরী।

তিনি বুধবার (৯ অক্টোবর) বিকালে কক্সবাজারের রামু কেন্দ্রীয় সীমা বিহার প্রাঙ্গনে প্রয়াত বৌদ্ধ ধর্মীয়গুরু পন্ডিত সত্যপ্রিয় মহাথেরর পেটিকাবদ্ধ অনুষ্ঠানে শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে এসব কথা বলেন।

বিএনপির কেন্দ্রীয় এই নেতা আরও বলেন,ধর্ম যার যার ,রাস্ট্র সবার। কোনধের্ম,কোন জাতী,কোন সংস্কৃতি এককভাবে দেশকে এগিয়ে নিতে পারেনা। দেশকে এগিয়ে নিতে হলে সাবাই সঙ্গে নিয়ে এগিয়ে যেতে হবে। সকল ধর্মের প্রতি শ্রদ্ধা রেখেই দেশকে এগিয়ে নিতে হতে।এটাই হচ্ছে বিএনপির রাজনীতি।

সকল জাতী এদেশের নাগরিক,ভোটের অধিকার সবার সমান। আমরা সব সময় বৌদ্ধ জাতীর প্রতি শ্রদ্ধাশীল ছিলাম। দেশনেত্রী খালেদা জিয়া আজ বাইরে থাকলে অবশ্যই রামুতে আসতেন। তাঁর পক্ষ থেকে প্রয়াত ধর্মীয় গুরুকে শ্রদ্ধা নিবেদনের জন্য এবং বৌদ্ধ স¤প্রদায়ের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপনের জন্য আমি এখানে এসেছি।

তিনি বলেন,বিএনপি বিশ্বাস করে কোন ধর্ম,কোন জাতী,কোন সংস্কৃতি এককভাবে দেশকে এগিয়ে নিতে পারেনা,দেশকে এগিয়ে নিতে হলে সবাই মিলে দেশকে এগিয়ে নিতে হবে।

বুধবার বেলা তিনটার দিকে বিএনপির এ প্রতিনিধি দল রামু কেন্দ্রীয় সীমা মহাবিহারে পৌঁছে প্রয়াত বৌদ্ধ ধর্মীয় গুরু পন্ডিত সত্যপ্রিয় মহাথের’র মরদেহে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। এ সময় অন্যন্যদের মধ্যে বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতা ড. সুকোমল বড়ুয়া, কেন্দ্রীয় বিএনপির মৎস্যজীবি বিষয়ক সম্পাদক লুৎফর রহমান কাজল,কক্সবাজার জেলা বিএনপির সভাপতি শাহাজাহান চৌধুরীসহ স্থানীয় নেতৃবন্দ উপস্থিত ছিলেন।

এর আগে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পক্ষে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়কমন্ত্রী বীর বাহাদুর উশৈসিং,এমপি।।

উল্লেখ্য, বাংলা-ভারত উপমহাদেশের প্রখ্যাত সাংঘিক ব্যক্তিত্ব,রামু কেন্দ্রীয় সীমা মহাবিহারের অধ্যক্ষ, পন্ডিত সত্যপ্রিয় মহাথেরো ৯১ বছর বয়য়ে গত ৩ অক্টোবর দিনগত রাত পৌনে একটার দিকে ঢাকা বঙ্গবন্ধু মেখ মুজিব মেডিকেল কলেজ (পিজি) হাসপাতালে পরলোক গমন করেন।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here